সর্বশেষ সংবাদ

ফের মুখরিত থিয়েটার অঙ্গন

September 30, 2020
image-113645-1601384435

প্রাঙ্গণেমোর নাট্যদলের প্রযোজনা ‘আওরঙ্গজেব’ নাটকের একটি দৃশ্য                                           করোনার মাঝেও নীরবতা ভেঙে ক্রমশ সচল হয়ে উঠছে দেশের থিয়েটার অঙ্গন। সব ঝক্কি-ঝামেলা আর ভয়-ভীতি কাটিয়ে সেই চিরচেনা জৌলুসে ফিরতে চলেছে মঞ্চনাটক। নাট্যকর্মীদের পদচারণা, নাটকের সংলাপ ও দর্শকের করতালিতে ফের প্রাণ ফিরে পাওয়ার পরিবেশের আভাস মিলছে মঞ্চ পাড়ায়। ছুটির দিনের সন্ধ্যায় আলোর ঝলকানিতে আলোকিত হচ্ছে রাজধানীসহ সারা দেশের মঞ্চগুলো। নাটক প্রদর্শনীতে ব্যস্ত হয়ে পড়ছেন নাটকের দলগুলো।

করোনাকালের সব দ্বিধা অতিক্রম করে দীর্ঘ প্রায় ৬ মাস পর ২৮ আগস্ট মঞ্চের আলোয় প্রথম ফুটে উঠে ‘লাল জমিন’। ২৮ আগস্ট বেইলি রোডের মহিলা সমিতির নীলিমা ইব্রাহিম মিলনায়তনে মান্নান হীরার লেখা ও সুদীপ চক্রবর্তীর নির্দেশনায় মঞ্চস্থ হয় শূন্যন রেপার্টরি থিয়েটারের একক অভিনয়ের আলোকিত নাটক ‘লালজমিন’। মোমেনা চৌধুরী অভিনীত এই নাটকটি চলতি মাসে আরও কয়েকটি প্রদর্শনী হয় ঢাকা ও ঢাকার বাইরে।

মূলত, এ নাটকের মাধ্যমেই করোনার বিরুদ্ধে অন্যরকম লড়াইয়ে নেমেছেন মঞ্চকর্মীরা। ‘লালজমিন’র প্রদর্শনীর মধ্য দিয়ে করোনা-পরবর্তী সময়ে শুরু হয় নাটক মঞ্চায়ন স্রোতধারা। গত ১১ সেপ্টেম্বর মহিলা সমিতি মিলনায়তনে মঞ্চস্থ হয় জাগরণী থিয়েটারের নাটক ‘রাজার চিঠি’। ১৮ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যা ৭টায় বাংলাদেশ মহিলা সমিতি মিলনায়তনে মঞ্চায়িত হয় দেশের প্রথম সারির নাট্যদল প্রাঙ্গণেমোর নাটক ‘আওরঙ্গজেব’। এটা ছিল এ নাটকের ৪৫তম মঞ্চায়ন। মোহিত চট্টোপাধ্যায়ের রচনায় এ নাটকের নির্দেশনা দিয়েছেন অনন্ত হিরা। অভিনয় করেন অনন্ত হিরা, নূনা আফরোজ, রামিজ রাজু, মাইনুল তাওহীদ, সরোয়ার সৈকত, শুভেচ্ছা, রিগ্যান রত্ন, সবুক্তগীন শুভ, বিপস্নব, প্রকৃতিসহ ২২ জন অভিনয়শিল্পী। নাট্যমঞ্চ বন্ধ থাকার পর কোনো নাট্যদলের অধিকসংখ্যক শিল্পী নিয়ে এটাই ছিল কোনো নাটকের প্রথম মঞ্চায়ন। আগামী ৩০ অক্টোবর এ দলটি মঞ্চে প্রদর্শন করবে তাদের ১২তম প্রযোজনা নাটক ‘কনডেমসেল’। চলতি বছরেই প্রাঙ্গণেমোর মঞ্চে আনছে আরও দুটি নতুন নাটক। এর একটির নাম ‘মেজর’। এর রচনা ও নির্দেশনা দিচ্ছেন অনন্ত হিরা। অন্যটি অনন্ত হিরার রচনা ও নুনা আফরোজের নির্দেশনায় নাটক ‘পতাকা পাগল’। নাট্যদল ‘প্রাচ্যনাট’ অভিনব এক ভাবনা নিয়ে কাজও শুরু করে দিয়েছেন। সাপ্তাহিক দুই ছুটির দিনকে কেন্দ্র করেই ৪ সেপ্টেম্বর থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে শুরু করেছে মাসব্যাপী ‘মহলা মগন’ উঠান নাটকের মেলা। ‘অবসাদবিরুদ্ধ স্রোত’ সেস্নাগান নিয়ে মাসব্যাপী এ আয়োজন চলছে কাঁটাবনের প্রাচ্যনাটের নিজস্ব মহড়া কক্ষে। পাঁচটি নাটক দিয়ে সাজান হয়েছে প্রাচ্যনাটের এ ভিন্নধর্মী আয়োজনটি। এ উঠান নাট্যোৎসবে উদ্বোধনী সন্ধ্যা থেকে শুরু করে পরপর দু’সন্ধ্যায় শুক্রবার ও শনিবার মঞ্চস্থ হয় ‘দ্য জু স্টোরি’। এডওয়ার্ড অ্যালবির লেখা থেকে এ নাটকটি বাংলায় অনুবাদ করেন আশফাকুল আশেকীন। নির্দেশনা দিয়েছেন কাজী তৌফিকুল ইসলাম ইমন। এছাড়া গত ১১ ও ১২ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় প্রদর্শিত হয় ‘দ্য ডাম্ব ওয়েটার’। হ্যারল্ড পিন্টারের রচনা থেকে এটি অনুবাদ করেছেন রবিউল আলম এবং নির্দেশনা দিয়েছেন মো. শওকত হোসেন সজীব। ১৯ ও ২০ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় প্রদর্শিত হয় ‘হানড্রেড বাই হানড্রেড’। এটি রচনা ও নির্দেশনা দিয়েছেন সাইফুল জার্নাল। একইভাবে ২৫ ও ২৬ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় প্রদর্শিত হয় গ্যাব্রিয়েল গার্সিয়া মার্কেসের উপন্যাস অবলম্বনে ‘কর্নেলকে কেউ চিঠি লেখে না’ নাটকটি। এটির নাট্যরূপ দিয়েছেন মো. শওকত হোসেন সজীব। নির্দেশনা দিয়েছেন কাজী তৌফিকুল ইসলাম ইমন। সর্বশেষ ২ ও ৩ অক্টোবর সন্ধ্যায় প্রদর্শিত হবে ‘ফাউস্ট অথবা অন্য কেউ’। গ্যোটের শ্রম্নতিনাট্য ‘ফাউস্ট’ অবলম্বনে এটি তৈরি করা হয়েছে। নাটকটি তত্ত্বাবধানে আছেন তানজি কুন। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের হত্যাকারীদের বাঁচাতে ১৯৭৫ সালের ২৬ সেপ্টেম্বর জারি করা হয়েছিল কুখ্যাত ইনডেমনিটি অধ্যাদেশ। ইতিহাসের সেই কালো অধ্যায়কে তরুণ প্রজন্মের কাছে তুলে ধরতেই ওয়ান বাংলার প্রস্তাবনায় মান্নান হীরা রচনা করেন ‘ইনডেমনিটি’ নাটক। বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে তরুণদের কাছে সেই কালো অধ্যাদেশ সম্পর্কে তুলে ধরতেই সারাদেশে মঞ্চস্থ হবে নাটকটি। ২৬ সেপ্টেম্বর সেই কালো দিবসে মঞ্চ ও টিভিতে প্রচারিত হয় নাটকটি। নাটকটি সারাদেশের মঞ্চস্থ হবে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ দেশের ১৩টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে দেশজুড়ে মঞ্চস্থ হবে এই নাটক। তবে তার আগে নাটকের মহড়াকে ঘিরে তরুণদের পদচারণায় মুখরিত হয় টিএসসিসহ অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের নাট্যমহড়া কক্ষগুলো।

ঢাকা থিয়েটার ও দেশ নাটক যৌথভাবে নতুন একটি নাটক মঞ্চায়নের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। নাটকের নাম ‘পেন্ডুলাম’। মাসুম রেজার রচনায় নাটকটি নির্দেশনা দিচ্ছেন নাসিরউদ্দিন ইউসুফ। অনলাইনে প্রায় দুই মাস ধরে নাটকটির মহড়া চলছে। নাটকটি প্রসঙ্গে নির্দেশক বলেন, ‘আমরা প্রতিকূল পরিবেশেও নাটক মঞ্চায়নের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। মহিলা সমিতি নাটক মঞ্চায়নের জন্য উন্মুক্ত হলেও শিল্পকলা একাডেমি এখনও কোনো সিদ্ধান্ত নেয়নি। তবে শিল্পকলার সঙ্গে আমাদের নিয়মিত যোগাযোগ হচ্ছে। তারা মঞ্চায়নের অনুমতি দিলেই আমরাও এ নাটকটি মহড়া কক্ষেই মহড়া করে দ্রম্নত মঞ্চে তুলব।’ এ নাটকের তিনটি চরিত্রের একটিতে অভিনয় করছেন নাজনীন হাসান চুমকী।

যায়যায়দিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


দ্য ফেস্টিভাল নিউজ

দ্য ফেস্টিভাল নিউজ, উই আওয়ার্স সিনেমার একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল। নান্দনিক শিল্পকর্মের সংবাদ, সমালোচনা ও সাক্ষাৎকার পরিবেশনা করে থাকে।


যোগাযোগ : weehourscinemabd@gmail.com

ফোন: +8801717434968